May 27, 2018, 12:06 pm

স্বাগতম

দেশের সবথেকে বড় এসইও ব্লগে আপনাকে স্বাগতম।আপনার প্রয়োজনীয় বিষয় খুজে পেতে দয়াকরে সার্চ বক্সে সার্চ করুন।আপনার কাঙ্খিত বিষয় না পাওয়া গেলে দয়াকরে আমাকে জানান।আমরা খুব শীঘ্রই এর উপরে টিউটোরিয়াল দেওয়ার চেস্টা করব।ধন্যবাদ-মোঃশাওন (Admin)

Google Penalty নিয়ে স্পষ্ট গাইডলাইন।

Google Penalty নিয়ে স্পষ্ট গাইডলাইন।

গুগল পেনাল্টি গাইডলাইন।Google penalty Bangla guideline

নোটঃ আর্টিকেল পড়তে বোরিং লাগে? তাহলে সরাসরি ভিডিওটি দেখে নিন।নিচে ভিডিও দেওয়া আছে

Google Penalty।পুরাতন এসইও ওয়ার্কারদের কাছে খুবই কমন একটি ব্যপার।

নতুনরাও এর সাথে একটু হলেও পরিচিত।

আর যারা একেবারেই নতুন তারাও হয়ত এটার নাম শুনেছেন।

hearing of skill71

হ্যা,আজকে আমরা এই গুগল পেনাল্টি নিয়ে বেসিক কিছু আলোচনা করব।আশাকরি নতুন ও একেবারেই নতুনদের লেখাটি খুব কাজে লাগবে।

আর যারা মোটামোটি জানি তারা তো জানিই।পুরাতন বা এক্সপার্টদেরও লেখাটি পড়ার অনুরোধ করব,লেখাটি সম্পর্কে তাদের গুরুত্বপূর্ন মতামত দেওয়ার জন্য ( কোন ত্রুটি থাকলে যেন সংশোধন করতে পারি।

তাহলে শুরু করা যাক-

প্রথমেই আমাদের জানতে হবে গুগল মূলত কীভাবে তার সার্চ রেজাল্টগুলা প্রদর্শন করে?

গুগলের তো আর সব বিষয়ে নিজস্ব ডাটা নাই।তাদের কাছে কেউ যখন কোন কিছু জানতে চায়,তারা তাদের ইনডেক্সে থাকা ওয়েবসাইটগুলা ফিল্টারিং করে গ্রাহকের কাছে তার জানতে চাওয়া তথ্য প্রর্দশন করে।

এই খুজে আনার কাজ কি কোন মানুষ ওয়েবসাইটগুলা ঘুরে ঘুরে করে? তাও আবার মিলি-সেকেন্ডের মধ্যে।

না; করে না

এই কাজ করার জন্য গুগল নিয়োগ করে দিয়েছে একদল “নিজস্ব বৈশিষ্ট্য সমৃদ্ব রোবট”

এই রোবটগুলাকে গুগল আগে থেকেই “বিভিন্ন কমান্ড দিয়ে রাখছে” যে,তোমরা এইরকম বৈশিষ্ট্য ওয়ালা ওয়েবসাইটকে প্রথমে,এই রকম বৈশিষ্ট্য ওয়ালা ওয়েবসাইটকে দ্বিতীয়তে…এইভাবে বৈশিষ্ট্য বেদে রেজাল্টগুলা শো করিয়ে দিবা।যদিও এখানে আরো অনেক ব্যাপার কাজ করে।যাই হোক সেটা আমার আলোনার বিষয় না।

 

আর এই ১ম,২য়,৩য় তে আসাকেই কেন্দ্র করে সৃষ্টি হয়েছে তুমুল এক প্রতিযোগিতা।

সেখানে ওয়েবসাইট Owner রা চায় তার ওয়েবসাইট যেন প্রথমে আসে,সে যেন অমক ওয়েবসাইটকে টপকাতে পারে।সেইজন্য যা করা দরকার আমাকে করতে হবে।

এই করাটাকেই মূলত ডাকা হয় এসইও নামে।

যেহেতু প্রতিযোগিতা,এখানে যেমন বৈধ পন্থা আছে তেমনি রয়েছে কিছু অবৈধ পন্থা যেটা যে কেউই সমর্থন করবে না।

 

যথারীতি গুগলও সমর্থন করে না,পছন্দ করে না বরং রীতিমতো এর বিরুদ্বাচারন করে।

প্রতিযোগিতার এই অবৈধ পন্থাকে প্রতিহত করার জন্য গুগল প্রতিনিয়তই তাদের Algorithm আপডেট করে কিছু ব্যবস্থা নিয়ে থাকে যেখানে “এই অবৈধ পন্থা যারা অবলম্বন করবে তাদের বিভিন্ন রকম শাস্তির ব্যবস্থা থাকে।

panishment of google penalty

যেমনঃ তার Brand নেইম কেই গুগল সার্চ রেজাল্ট থেকে আউট করে দিবে।

মানে সরাসরি তার ওয়েবসাইটের নাম লিখে সার্চ করলেও তার ওয়েবসাইট দেখা যাবে না।এক কিকে তার ওয়েবসাইট ১ম পেইজ থেকে ১০,১২ পেইজ পাঠিয়ে দিবে।

এই শাস্তিগুলা কিন্তু গুগল অটোমেটিক দেয়।গুগল এর Algorithm এ সেটা আপ করে দেওয়াই আছে,

কেউ যদি এই রকম কাজ করে তাহলে তাকে এই রকম শাস্তি পেতে হবে।গুগল রোবট এটা নিজে থেকেই বুঝে নিবে অতঃপর শাস্তিস্বরূপ পেনাল্টি দিবে।

 

মনে রাখবেন,

শাস্তি যেমন আছে তেমনি সেই শাস্তি শেষ হওয়ারও একটি মেয়াদ আছে।

মানে আপনি পেনাল্টি খেলেও সেটাকে আবার ঠিকথাক করে আপনার শাস্তি মাপ করাতে পারবেন।আপনি আবার রাঙ্কে আসতে পারবেন।

মাপ করানো বা পেনাল্টি রিকোবার সিস্টেম নিয়ে একটু নিচের দিকে বলছি।প্লিস wait and read.

 

অপরাধ বেদে আবার এই শাস্তি বিভিন্ন রকম হয়।

সবগুলা অপরাধ একরকম নয় আবার সবগুলার শাস্তিও একরকম নয়।

Google এই পর্যন্ত বিভিন্ন পেনাল্টি বের করে করেছে।সেগুলা একেকটা একেক অপরাধের জন্যে দেওয়া হয়।

সবগুলা পেনাল্টি,কেন দেয়,কী শাস্তি দেয়,রিকোবার সিস্টেম কী ইত্যাদি এক আর্টিকেল এ দিলে হয়ত একটা বিশৃংখলা লেগে যাবে ।

তাই আমি-একেকটা পেনাল্টি নিয়ে আলাদা আলাদা আর্টিকেল বিস্তারিত আলোচনা করব।

  • সেই পেনাল্টি কেন দেয়?
  • কীভাবে বুঝবেন আপনার ওয়েবসাইট পেনাল্টি খেয়েছে কিনা?
  • খেলেও,সেটা বুঝবেন কেমনে যে কোন পেনাল্টি খেয়েছে?
  • সেটার রিকোবার সিস্টেম কী?

ইত্যাদি নিয়ে আলাদা আলাদা আর্টিকেল এ আলোচনা করব।

এখানে আমি ছোট্ট করে বলছি।

গুগল এই পর্যন্ত কয়েকটি পেনাল্টি বের করেছে।সেই পেনাল্টিগুলার মধ্যে ০৫টি রয়েছে মেজর পেনাল্টি যেগুলাকে এসইও এক্সপার্টরা খুবই গুরুত্বের সাথে বিবেচনা করেছেন

আবার অনেক পেনাল্টি গুগল প্রকাশ করে করে না।সেজন্য সেটা নিয়ে কেউ জানতেও পায় না।যাইহোক মেজর পেনাল্টি মূলত এই ০৫টি।যেমনঃ

১) Google Penguin
2) Google Panda
3) Hummingbird
4) Mobile updates
5) Manually Penalty

ক্লিক করে দেখে নিন।কোন পেনাল্টি কেন দেয়,প্রতিরোধক ও রিকোবার সিস্টেম

এই অবৈধ পন্থা অবলম্বন করে শুরুর দিকে পার পাওয়া গেলেও এই ২০১৮ তে এসে কিন্তু আর পার পাওয়া যাবে না।

গুগল এর রোবট এখন আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্ট সমৃদ্ব।তাই ফাকি দেওয়ার চিন্তাও কখোনো কইরেন না।

জানেনই তো-

প্রতিষেধক এর থেকে কিন্তু প্রতিরোধক সবসময় ভালো সেটা আমরা সবাই মানি।

তাই আপনার ওয়েবসাইট যাতে পেনাল্টি না খায়,সেইজন্য আগে থেকেই প্রতিরোধক ব্যবস্থা গ্রহন করুন আমাদের এই আর্টিকেলটি মনোযোগ সহকারে পড়ে।

ওয়েবসাইটকে সকল পেনাল্টি থেকে নিরাপদ রাখতে হলে যা যা করনীয়

পেনাল্টি রিকোবার নিয়ে হেল্প বা সাপোর্ট নিতে পারেন আমাদের সাপোর্ট টিমে ম্যাসেজ করে।

 

Google পেনাল্টি নিয়ে আমাদের গাইডলাইনমূলক ভিডিওটি দেখুন এখানে

ইন্টারনেট মার্কেটিং ও ব্লগিং এর প্রতি অসম্ভব আসক্ত একটা ছেলে।আর সেই আসক্তি থেকেই তৈরী করা -Skill71 Team।এখন নিজের সব চাওয়া পাওয়া,স্বপ্ন,ক্যারিয়ার,ভালোলাগা,খারাপ লাগা,সফলতা,ব্যার্থতা সবকিছু যেন ভার্চুয়াল জগতের মধ্যেই সীমাবদ্ব হয়ে আছে।তৈরী করতে চাই ইন্টারনেট মার্কেটিং নিয়ে শক্তিশালী একটি নেটওয়ার্ক যেখানে ইন্টারনেট মার্কেটিং এর সবকিছুই পাওয়া যাবে সম্পূর্ন ফ্রিতে

আপনার অনুভূতি জানিয়ে দিন....( like/dislike/Recommended )
সকলের কাছে বার্তা পৌছে দিতে শেয়ার করুন।যদি গ্রহনযোগ্য মনে হয়
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


Leave a Reply

Your email address will not be published.

সাথে সাথে ক্লাসের আপডেট পেতে Subscribe করে রাখুন

সর্বসত্ব সংরক্ষিত -Md Shawon from Skill71 Team
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com